মনের কথা বলবে সফটওয়্যার

মনের কথা বলবে সফটওয়্যার

অনিরুদ্ধ সাজ্জাদঃ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের সহপ্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ বলেছেন, তারা এমন একটি প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছেন যার ফলে কম্পিউটারগুলো সরাসরি মানব মস্তিষ্ক দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হবে। সাইলেন্ট স্পিচ নামক একটি সফটওয়্যার নিয়ে কাজ করছেন তারা। এই সফটওয়্যার ব্যবহার করে মানুষ প্রতি মিনিটে ১০০ শব্দ টাইপ করতে পারবে।

সফটওয়্যারটির বিশেষত্ব হল থট রিডিং ক্ষমতা। অর্থাৎ আপনি যা চিন্তা করবেন বা যা লিখতে চাইবেন সফটওয়্যারটি সেই সমস্ত চিন্তা লেখায় ফুটে তুলবে। তবে এজন্য আপনাকে টাইপ করতে হবে না।

নতুন এই প্রযুক্তি সম্পর্কে ফেসবুক কর্মকর্তা রেগিনা দুগান বলেছেন, একজন মানুষের চিন্তা ভাবনার কোন সীমা নেই। এই সফটওয়্যারটি মানুষের সমস্ত চিন্তা ভাবনা সম্পর্কে জানতে পারবে না। কিন্ত মানুষের বহু চিন্তার মধ্যে কোন চিন্তাটি লেখায় ফুটে উঠবে, সফটওয়্যারটি নিজেই তা নির্ধারণ করবে। একজন মানুষ যেগুলো চাইবে সফটওয়্যারটি কেবল সেগুলো ‘ডিকোড’ করবে। তিনি আরও বলেন, আমরা একটা ‘স্পিচ ইন্টারফেস’ নিয়ে কাজ করছি যেটাতে কথা বলার স্বাভাবিক গতি এবং নমনীয়তা সবই থাকবে। এই প্রজেক্টের জন্য প্রয়োজন নতুন প্রযুক্তির।

এই প্রজেক্টের সাথে জড়িত সফটওয়্যার এবং হার্ডওয়্যার দুই-ই তৈরি করছে ফেসবুক । এজন্য ৬০ জন বিজ্ঞানী ও শিক্ষাবিদের তালিকাও তৈরি করা হয়েছে।

মার্ক জুকারবার্গ তার ফেসবুক পেজে লিখেছেন, আমাদের মস্তিষ্ক প্রতি সেকেন্ডে যে পরিমাণ ডেটা উৎপন্ন করে তা চারটি এইচডি মুভির সমান। সমস্যাটা হলো এই ডেটা হাতে পাওয়ার একমাত্র উপায় হলো কথা।

তিনি বলেন, আমার যেটা করতে চাচ্ছি সেটা হলো- মানুষ সরাসরি তার মস্তিষ্ক ব্যবহার করে টাইপ করতে পারবে। তার জন্য হাতের প্রয়োজন হবে না। টাইপ হবে মস্তষ্কের সাহায্যে। মানুষ যা লিখতে চাইবে সে লেখাটি লেখার জন্য হাতের প্রয়োজন হবে না। মানুষ চিন্তা করবে আর সেই চিন্তাটি লেখায় ফুটে উঠবে সফটওয়ারটির সাহায্যে।

হাত ছাড়া টাইপিং চিন্তা করা যায় না। কিন্তু মানব মস্তিষ্ক এই টাইপিং এর কাজ হাত ছাড়া কীভাবে করবে সেই কাজে নিয়োজিত রয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

তথ্যসুত্রঃ ইন্টারনেট।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password